অজান্তেই ওমিক্রন হয়েছিল কি না জানাবে ৩ লক্ষণ

করোনা ভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন আতঙ্ক ছড়াচ্ছে বিশ্বজুড়েই। দ্রুত গতিতে ছড়িয়ে পড়া ভাইরাসের এই রূপ নিয়ে বিশেষজ্ঞরাও চালিয়ে যাচ্ছেন নানা গবেষণা। বিভিন্ন মানুষের শরীরে ভিন্ন ভিন্ন উপসর্গ দেখা দিচ্ছে ওমিক্রনের ফলে।

করোনার এই নতুন রূপ ডেল্টার তুলনায় কম সক্রিয় হলেও, অনেক বেশি সংক্রামক বলে জানাচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা। তবে এর উপসর্গ আগের চেয়ে অনেকটাই মৃদু।

মূলত করোনার প্রভাব শ্বাসযন্ত্র ও ফুসফুসের উপরে সবচেয়ে বেশি পড়ে। তবে বর্তমান করোনা পরিস্থিতি ফুসফুসের উপর কম প্রভাব ফেলায় হাসপাতালগামী আক্রান্তের সংখ্যা অনেক কম। ওমিক্রনের প্রভাবে লং কোভিডে ভুগতে হতে পারে বলে জানাচ্ছেন চিকিৎসকরা।

ওমিক্রনের সাধারণ কয়েকটি উপসর্গ যেমন- সর্দি, জ্বর, গলা ব্যথা, নাক দিয়ে পানি পড়া, পেশিতে ব্যথা ইত্যাদি। দুটি টিকা নেওয়া থাকলে আক্রান্ত হলেও কোনো কঠিন শারীরিক সমস্যার মুখোমুখি হতে হবে না, এই ধারণা থেকে অনেকেই এসব উপসর্গ সাধারণ ফ্লু ভেবে ভুল করছেন।

এ কারণে অনেকেই টের পাননি যে, তিনি এরই মধ্যে ওমিক্রনে আক্রান্ত হয়েছিলেন। ঠান্ডা, গলা ব্যথা, জ্বর ও পেশিতে ব্যথা তো সাধারণ ফ্লুতেও হয়, এই ভেবে অনেকে কোভিড টেস্টও করছেন না। তাই বোঝা মুশকিল হয়ে পড়ছে কার কোভিড হয়েছিল আর কার নয়।

তবে ওমিক্রনে আক্রান্তদের বেশিরভাগ নেগেটিভ হওয়ার পরও শারীরিক বিভিন্ন সমস্যায় ভুগতে পারেন। যাকে বলা হচ্ছে লং কোভিড। চলুন তবে জেনে নেওয়া যাক কোন ৪ লক্ষণ জানান দেবে আপনি অজান্তেই ওমিক্রনে আক্রান্ত হয়েছিলেন-

> শীতে হরেক রকম খাবার খাওয়া হয়। পিঠা-পুলি থেকে শুরু করে বিরিয়ানি বা মাংসের বাহারি পদ খাওয়ার ফলে পেটের সমস্যায় অনেকেই ভোগেন।

তবে জানেন কি, ওমিক্রনের কারণেও আপনি ভুগতে পারেন হজমের সমস্যায়। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার তথ্য অনুসারে, ওমিক্রনে আক্রান্ত হলে ডায়রিয়া, খিদে কমে যাওয়া, বমি বমি ভাব ও হজমের সমস্যা দেখা দিতে পারে।

> শীতে চুল পড়ার পরিমাণ অনেক বেড়ে যায়। তবে অস্বাভাবিক হারে চুল পড়ার লক্ষণ কিন্তু ওমিক্রনের ইঙ্গিত দেয়। কোভিড থেকে সেরে ওঠার পরে অনেকেই এই সমস্যায় ভুগছেন।

করোনার কোনও উপসর্গ না থাকা সত্ত্বেও স্বাভাবিকের তুলনায় বেশি চুল পড়ছে? হতে পারে আপনি উপসর্গহীন করোনা আক্রান্ত ছিলেন কিন্তু একদমই টের পাননি।

> ত্বকের ফুসকুড়ি কিংবা ছত্রাকঘটিত বিভিন্ন সমস্যা শীতকালে দেখা দেয়। তবে হঠাৎ করেই যদি হাত-পা বা মুখের ত্বকে কোনো ফুসকুড়ি দেখা দেয়, তাহলে এড়িয়ে যাবেন না। ত্বকের সমস্যাও ওমিক্রনের লক্ষণ বলে জানিয়েছেন অনেক চিকিৎসক।

তাই এসব উপসর্গ দেখা দিলে বুঝে নিন আপনি ওমিক্রনে আক্রান্ত হয়েছিলেন, অথচ টের পাননি। তবে আতঙ্কের বিষয় হলো, ওমিক্রনের প্রভাবে শরীরে মৃদু উপসর্গ দেখা দিলেও, পরবর্তী সময়ে তা লং কোভিডে রূপ নিতে পারে। তাই চিকিৎসকের পরামর্শ নিন ও চেকআপ করুন।

বর্তমানে ‘সাধারণ ঠান্ডা লাগা’ ভেবে অনেকেই ওমিক্রনকে এড়িয়ে যাচ্ছেন। তবে খেয়াল করেছেন কি, আপনার আশপাশের অন্যরা অসুস্থ হয়ে পড়ছেন কি না?

অনেকেই দু’দিন ধরে সর্দি-কাশি, জ্বর, গলা ব্যথায় ভুগছেন, শীতকালে এই রকম হয় বলে এড়িয়ে যাচ্ছেন সবাই।

তবে আপনার সংস্পর্শে আসার ফলে পরিবারের সদস্যদেরও যদি একই সমস্যা দেখা দেয় তাহলে অবশ্যই আইসোলেশনে থাকুন ও সবাই কোভিড টেস্ট করান।

সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

Leave a Reply

Your email address will not be published.